জেনে নিন মেহেদির রং গাঢ় করার কৌশল

Source: priyo.com

ঈদ মানে খুশি ,আনন্দ ও উচ্ছ্বাস । সেই আনন্দকে রঙিন করতেই মেহেদির আগমন। শুধু ঈদ না, ছোট বা বড় যে কোন উপলক্ষ থেকে শুরু করে বিয়েবাড়ি সব জায়গাতেই মেহেদীর আনাগোনা ব্যাপক ।

মেহেদি ছাড়া উৎসব অপূর্ণ । আর তা যদি হয় ঈদ তাহলে তো কথাই নেই । ঈদের আগের রাতকে মেহেদি উৎসবের রাত ও বলা যায়। সকাল থেকেই মেহেদি লাগানোর ধুম পড়ে যায়। এরপর প্রতিযোগিতা হয় কার ডিজাইন কত সুন্দর, কার হাতে মেহেদির রঙ বেশি গাঢ় হলো।

source: rewardme.in

নিজের পছন্দের জামা জুতা প্রসাধনী সব কেনা শেষ। কিন্তু ঈদের অন্যতম প্রধান আকর্ষণ মেহেদি কেনা হলেও মেহেদী ডিজাইন আর রঙ নিয়ে দুর্বিপাকে পড়তে হয় অনেক সময় । কোন ডিজাইনটি হাতে মানাবে ?বেশি ফুটে উঠবে?কোন ডিজাইনটি বেশি আকর্ষণীয়? এ নিয়ে যেন ভাবনার অন্ত নেই।

কিন্তু রঙের ক্ষেত্রে আরো বেশিই চিন্তা হয় সবার। এতো কিছুর পর যদি মেহেদির রঙটা গাঢ় না হয়, তবে সব কিছুই বৃথা। আর তাই মেহেদীর রঙ গাঢ় করার উপায়গুলো নিয়েই আজকের এই আয়োজন।

১. মেহেদি দেয়ার পূর্বে হাত পরিষ্কার করে নিন

Source: rodoshee.com

ঈদে কী আর কাজের শেষ আছে! এতো কাজের ফলে আপনার হাতে জমে যায় তেল আর ময়লা। তাই মেহেদি দিতে বসার আগে সাবান দিয়ে ভালোভাবে হাত ধুয়ে নিন। আর তা না হলে এই ময়লা ও তেল আপনার ত্বক ও মেহেদির মাঝে বাধা সৃষ্টি করবে । এতে মেহেদি আপনার ত্বকের উপর বসবে না। যার ফলে গাঢ় রং তো পাবেনই না, বরং মেহেদির রঙও বেশিদিন টিকবে না।

২.  ইউক্যালিপটাস তেল প্রয়োগ করে দেখতে পারেন

মেহেদির রঙ সবার থেকে ব্যতিক্রম পেতে চান ব্যাবহার করুন ইউক্যালিপটাস তেল। অনেকে ইউক্যালিপটাস তেলকে নীলগিরি তেলও বলে থাকেন। মেহেদি শুকিয়ে গেলে তা তুলে ফেলার পর এই তেল লাগাতে পারেন। এটি শুধুমাত্র সুগন্ধযুক্তই নয়, বরং আপনার হাতের ও পায়ের মেহেদির রঙ গাঢ় করতে সাহায্য করবে।

৩. আপনার মেহেদি প্রাকৃতিকভাবে শুকিয়ে নিন

মেহেদি হাতে দেওয়ার পর অনেকেরই তা শুকানো পর্যন্ত ধৈর্য থাকে না। অনেকেই তাড়াতাড়ি শুকানোর জন্য হেয়ার ড্রায়ার ব্যাবহার করে থাকেন বা হাত বেশ জোরেসোরে নাড়াচাড়া করেন। আপনার এতো সময় ধরে দেয়া ডিজাইনটি মাত্র এই একটি ভুলের জন্য নষ্ট হয়ে যেতে পারে।

Source: priyo.com

তাই মেহেদি দেওয়ার পর এই ভুল করবেন না। আস্তে আস্তে মেহেদি শুকাতে দিন। এতে আপনার ডিজাইনও ভালো পাবেন, আর মেহেদির রংও ভালো হবে। চাইলে ফ্যানের বাতাসেও শুকাতে পারেন ।

৪. দীর্ঘসময় মেহেদি হাতে রাখুন

আপনার হাতের মেহেদি লাগানোর সময় থেকে কমপক্ষে ৭ থেকে ৮ ঘন্টা মেহেদি রাখার চেষ্টা করুন।  দীর্ঘসময় মেহেদি রাখলে মেহেদির রঙ ও গাঢ় হয়। যদি সম্ভব হয়,সারা রাতও মেহেদি লাগিয়ে রাখতে পারেন।

Source: googleusercontent.com

শুকানোর পর আপনার মেহেদি মাখা হাতটি আলতোভাবে কিছু দিয়ে মুড়িয়ে নিতে পারেন। এতে আপনার ডিজাইনও অক্ষত থাকবে এবং বিছানা ও নষ্ট হবে না। অনেকে কাগজে হাত মুড়িয়ে রাখেন, কিন্তু এতে ডিজাইন নষ্ট হবার সম্ভাবনা থাকে। আপনি এক্ষেত্রে পলিথিন ব্যবহার করতে পারেন।

৫. ভাপ দিতে পারেন

যদি আকর্ষণীয় গাঢ় মেহেদির রঙ পেতে চান, তবে একটা আয়রন প্যানে কয়েকটি লবঙ্গ দিন। এবার অল্প আঁচে জ্বাল দিন। প্যান থেকে ধোয়া উঠা শুরু করলে হাতটি সাবধানে প্যানের উপর রাখুন, যেনো লবঙ্গের ভাপ সরাসরি আপনার মেহেদিতে লাগে। তবে একটু সাবধানে করবেন। অসতর্কতায় আপনার হাত পুড়ে যেতে পারে ।

৬. লেবু এবং চিনির মিশ্রণ

মেহেদি সম্পূর্ণ শুকানোর পর আপনার হাতে চিনি এবং লেবুর রসের মিশ্রন লাগান । একটি তুলোর বলে এই মিশ্রণটি লাগিয়ে মেহেদির উপর লাগান। চিনি ত্বকের সাথে মেহেদিকে ভালোভাবে লাগতে সাহায্য করবে আর লেবুর রস মেহেদির রঙ গাঢ় করবে। তবে অতিরিক্ত লেবু ও চিনির মিশ্রণ দেবেন না। এতে উপকারের থেকে ক্ষতিই বেশি হবে।

৭. ভিক্স ব্যবহার করতে পারেন

সারারাত মেহেদী রাখার পর এখন মেহেদি উঠিয়ে ফেলার সময়। আলতোভাবে আপনার মেহেদি তুলুন । ভিক্স বা  টাইগার বাম প্রয়োগ করে দেখতে পারেন। এটি আপনার মেহেদীর রঙ গাঢ় করতে সাহায্য করবে। ভিক্সে  ইউক্যালিপটাস বা নীলগিরি তেল থাকে যা মেহেদীর রঙ গাঢ় করে। চাইলে অলিভ অয়েলও দিতে পারেন।

৮. পানি থেকে দূরে থাকুন

মেহেদি তোলার পর ২৪ ঘণ্টা পানির কাছাকাছি না থাকাই ভালো । পানি আপনার মেহেদির উপরের স্তর এবং রঙটি হালকা করে দেয়, যার ফলে মেহেদির রঙ বেশিদিন থাকে না। তবে  রান্নাঘরে গ্লাভস পরে কাজ করতে পারেন।

৯. মেহেদি দেয়ার পর বিউটি ট্রিটমেন্ট থেকে বিরত থাকুন

সৌন্দর্য সচেতন নারীরা প্রত্যেকটি অঙ্গের যত্ন সমান ভাবে নিয়ে থাকেন । হাত ও পায়ের যত্নে তারা নিয়মিত পেডিকিউর এবং ম্যানিকিউর করিয়ে থাকেন।

Source:fashionlady.in

তাই মেহেদি পরার আগেই আপনি পেডিকিউর এবং ম্যানিকিউর করিয়ে নিবেন। যদি তা মনে না থাকে বা মেহেদীর পর করা প্রয়োজনীয় হয়ে পড়ে তাহলে অন্তত ২ বা ৩ দিন পর করাতে পারেন। অন্যথায় আপনি মেহেদীর রঙ ও স্থায়িত্ব দুটোই নষ্ট হবে।

১০. আগেভাগেই মেহেদি পড়ুন

Source:fashionlady.in

উপলক্ষের দু’একদিন আগেই হাতে মেহেদি লাগিয়ে নিন। কারণ মেহেদি সাধারণত ১/২ দিন পরে ডার্ক শেড দেয়।সে অনুযায়ী আপনার মেহেদি দেয়ার পরিকল্পনা করুন। তাহলে আপনার মেহেদীর সর্বোচ্চ রং বজায় থাকবে আর এর নজরকাড়া রঙ সবাইকে চমকে দিবে।

তাহলে আর দেরি নয়। আপনার হাতের নান্দনিক মেহেদি ডিজাইন আর আকর্ষণীয় রঙ দিয়ে সবাইকে তাক লাগিয়ে দিন।

2 COMMENTS

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.