ক্যারিয়ার হিসাবে স্টাইলিস্ট

শৈলশিল্পী বা স্টাইলিস্ট শব্দটি শুনতেই কেমন যেন রিনিঝিনি শোনায়! ক্যারিয়ার হিসাবে একজন শৈলশিল্পী হওয়াটা এক ধরনের অ্যাডভেঞ্চার বলা চলে। বড় বা ছোট পর্দার বিভিন্ন বিখ্যাত মানুষের জন্য আপনি পোশাকের ধরন ঠিক করে দেবেন এবং ভালো রকমের মাইনে পাবেন ভাবতেই অন্য রকম লাগে।

একজন স্টাইলিস্ট; Source: WeTheFashion Blog

কিন্তু এই পর্যায় পর্যন্ত কেউ কীভাবে পৌঁছায়, এর জন্য কী ধরনের যোগ্যতার প্রয়োজন হয়, কী দেখে বেছে নেয়া হয় শৈলশিল্পীদেরকে? এসব প্রশ্নের উত্তর হিসাবে আমরা খুঁজে নিয়েছি বিখ্যাত স্টাইলিস্ট বেসিয়া রিচার্ড এর কিছু সাক্ষাতকারকে। সেলিনা গোমেজ থেকে ভিক্টোরিয়া জাস্টিস পর্যন্ত বেশ কিছু পরিচিত মুখের জন্য কাজ করেছেন বেসিয়া। ২০১৬ সালে মেট গ্যালাতে সেলিনা গোমেজের আকর্ষণীয় সেই লুকের কথা মনে আছে? এর জন্য একমাত্র ক্রেডিট যায় বেসিয়ার ঝুলিতে! বেসিয়া তার মূল্যবান সময় থেকে কিছুটা সময় বের করে বেশ কিছু টিপস দিয়েছেন ক্যারিয়ার হিসাবে শৈলশিল্পকে বেছে নেয়ার বিষয়ে। চলুন তবে সেগুলো দেখে নেয়া যাক।

বেসিয়া রিচার্ড; Source: TheFashionBall

১. ইন্টার্নশিপ

যে কোনো চাকরির জন্য যেমন ইন্টার্নশিপ বেশ বড় একটি ভূমিকা রাখে সেলিব্রেটি স্টাইলিস্টও তার ব্যতিক্রম নয়। ভালো কোনো ফ্যাশন হাউজ বা এজেন্সি থেকে এই বিষয়ে ইন্টার্ন করে নেয়া ভালো। শুরুতেই একজন স্টাইলিস্টের অ্যাসিসটেন্ট হিসাবে কাজ শুরু করতে পারলে খুব কাছ থেকে প্রতিটা কাজ শিখে নেয়া যায়। আপনার কাজের দক্ষতাও প্রমাণ করার সুযোগ হবে এখানেই।

প্রয়োজন ইন্টার্নশিপের; Source: Michelle Sanfilippo Style

আসলে সেলিব্রেটিরা খুব ছোট্ট গন্ডির মাঝে থাকতে ভালোবাসেন। তাদের আলাদা জগতটায় শুধু তাদেরকেই রাখতে পছন্দ করেন যারা তাদের সাথে কাজ করেন। তাই এই গন্ডির মাঝে ঢুকতে চাইলে আপনাকে কারও হাত ধরেই এগোতে হবে। হুট করে চাইলেই আপনাকে কেউ তার ব্যক্তিগত স্টাইলিস্ট করে নেবেন না।

ফ্যাশন ডিজাইনিং এ পড়াশুনা করেই ভালো স্টাইলিস্ট হওয়া সম্ভব না। এটা এমন একটা ক্ষেত্র যেখানে আপনার হাতে কলমে কাজ শিখতেই হবে।

২. লুকবুক

লুকবুক হলো কিছু ছবির সংগ্রহ। এই ছবিগুলো হবে একান্তই আপনার চিন্তার প্রতিচ্ছবি। আপনি যেভাবে কোনো পোশাকের ডিজাইন চিন্তা করেন সেটা আপনি রঙ এবং ডিজাইন সহ এঁকে রাখুন। কেমন রঙের, আকৃতির মানুষের জন্য আপনি সেটা ভেবে রেখেছেন তাও টুকে রাখুন।

লুকবুক; Source: Kai Kuusisto

আপনার লুকবুক যত পরিপূর্ণ হবে আপনার মেধা ততই বেশি প্রকাশ করার সুযোগ হবে।

৩. ফ্যাশনের জগতে ঘুরে বেড়ান

যে কোনো কাজ শুরু করার জন্য সেই কাজের মধ্যে ডুবে থাকাটা খুবই জরুরি। তাই শৈলশিল্পী হবার জন্য আপনাকে ফ্যাশনের জগতে ঘুরে বেড়াতে হবে। বিভিন্ন ফ্যাশন শো-তে যাওয়া, বর্তমান চলের দিকে খেয়াল রাখা, কে কেমন পোশাক পরতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করছেন ইত্যাদি দিকে খেয়াল রাখুন। সেলিনা গোমেজ এবং টেইলর সুইফটের চেহারা কাছাকাছি হলেও দুইজনের পোশাকে কী ধরনের পার্থক্য আছে তা আপনি কাছ থেকে লক্ষ্য না করলে কখনওই বুঝবেন না।

দেখে দেখে শিখুন, Source: Plunder Design

৪. গবেষণা সাফল্যের চাবিকাঠি

বেসিয়া রিচার্ড বলেন, একজন স্টাইলিস্টের সার্চ হিস্টোরি চেক করলে মানুষ তাকে পাগল ভাবে। বিভিন্ন মানুষের পোশাক দেখে দেখে সময় কাটানোর কোনো কারণ তারা খুঁজে পায় না।

অনলাইনে রিসার্চ করুন; Source: Colorlib

একজন স্টাইলিস্ট এর মোটামুটি সারাটা দিনই কম্পিউটারে পড়ে থাকতে হয়। তাকে সবসময় জানতে হয় বিভিন্ন পোশাক এবং ফ্যাশন শো সম্পর্কে। কোনো একটা স্টাইল হঠাৎ করেই মার্কেটে খুব বেশি চলে উঠে এলে তার কারণটাও বের করতে হয় রিসার্চ করেই। তাই একজন স্টাইলিস্টের ভালো একজন গবেষক হওয়াও বেশ জরুরি।

৫. নেই ঘুম, নেই খাওয়া

একজন শৈলশিল্পী হবার জন্য আরও একটি প্রয়োজনীয় গুণ হলো মানসিক শক্তি। কাজের চাপ কখনওই সমান থাকবে না। কোনো দিন হয়তো আপনি সমুদ্রের পাড়ে বসে আরাম করে স্মুদি খেয়ে দিন পার করবেন আবার কোনো সপ্তাহ হয়তো কাটবে নির্ঘুম। কখনও হয়তো দিনে একটা স্যান্ডউইচ খাবার সময় পেলেই নিজেকে ধন্য মনে হবে।

ঘুম খাওয়া ছেড়ে কাজ করতে হতে পারে; Source: The Sleep Advisors

এই ধরনের সময়ের জন্য মানসিক ভাবে প্রস্তুত থাকতে হবে। সেলিব্রেটিরা আপনার সঙ্গে সময় মেলাবেন না। আপনাকেই তাদের সাথে শিডিউল মিলিয়ে নিতে হবে। তাই আপনাকে থাকতে হবে সদা প্রস্তুত।

স্টাইলিস্ট হিসাবে কাজ করা অনেকেরই স্বপ্ন। অনেকে বাসায় বলতে পারছেন না। অনেকেই আবার কীভাবে শুরু করবেন সেটা বুঝতে পারছেন না। কারো কারো হয়তো অনেক মোটা লুকবুক তৈরি করা আছে কিন্তু কোথায় এই লুকবুক কাজে লাগবে সেটা তিনি গুছিয়ে উঠতে পারছেন না।

সবার জন্যই ছিলো বেসিয়া রিচার্ডের এই পরামর্শগুলো। আপনাদের সুবিধার্থে বাংলাদেশের ফ্যাশন ডিজাইনিং কোর্সের প্রতিষ্ঠানগুলোর নাম এবং ঠিকানা উল্লেখ করা হলো-

১. বিজিএমইএ ইউনিভার্সিটি অফ ফ্যাশন এন্ড টেকনোলোজি

এস আর টাওয়ার
১০৫ উত্তরা মডেল টাউন
সেক্টর ৭, ঢাকা – ১২৩০
Tel: 58950986, 58950987 & 48950535
Email: [email protected]
Website: http://buft.edu.bd/

২. শান্ত-মারিয়াম ইউনিভার্সিটি অফ ক্রিয়েটিভ টেকনোলজি

হাউজ #১, রোড #১৪, সেক্টর #১৩, উত্তরা, ঢাকা – ১২৩০
Phone: +88 02 7912713, +88 02 7912714, +88 02 7914596, +88 02 8932368, +88 02 58958932, Fax : +88 8915308
Mobile: +880 1988 88 77 00 – 18,
Email: [email protected],
Website: www.smuct.edu.bd

৩. ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অফ ফ্যাশন টেকনোলজি

৭৪, কমার্শিয়াল এরিয়া, ওয়্যারলেস গেট, মহাখালি, ঢাকা
Phone: 02 9852132
Cell: 017 31 22 00 99, 019 71 00 77 77, 019 92 07 70 29
Email address : [email protected]
Web address : http://www.nift.edu.bd

৪. পার্ল ফ্যাশন ইন্সটিটিউট – বাংলাদেশ

হাউজ #১১, রোড #৬, বারিধারা, ঢাকা
Tel.: 8857763, 9899074, 9887419,
Cell: 0187 -044027
E-mail: [email protected]
Web: http://www.pearlinstitute.com

আরও কিছু প্রতিষ্ঠানের নাম থাকছে এখানে

Feature Image Source: StyleBlueprint

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.