লিপ প্লাম্পার বা ঠোঁট ফুলিয়ে তোলার কিছু উপাদান

কিম কার্দাশিয়ান বা কাইলি জেনার অথবা ধরা যাক অপ্সরী অ্যাঞ্জেলিনা জোলিরই নাম, এদের রুপে-গুণে আমরা যেমন মুগ্ধ, তেমনি তাদের এক জোড়া ঠোঁটের সৌন্দর্য কিন্তু কারোই নজর এড়ায় না। সুন্দর ছাঁচে গড়া ও পুরু ঠোঁট যেন ঈশ্বরের সরাসরি আশীর্বাদ স্বরূপ। সেরকম ঠোঁট পেতে গুগল ঘাটলেই পাওয়া যায় হাজার রকমের ভিডিও।

লিপ প্লাম্পার ব্যবহারের আগে ও পরে; Source: juvalips.com

যেহেতু এত সুন্দর ঠোঁটের বৈশিষ্ট্য নিয়ে খুব কম মানুষই পৃথিবীতে আসেন, তাই বাকিরা শরণাপন্ন হন বাজারে পাওয়া বিভিন্ন পণ্যের। যার বেশির ভাগই নকল এবং ক্ষতিকারক উপাদানে তৈরি। মিষ্টি হাসি, কথা বলার সময় ঠোঁটের নড়াচড়া কিংবা ভালোবাসা প্রকাশে ‘পাউট’ এর জুড়ি নেই। তাই আমাদের আজকের আলোচনায় থাকছে এমন কিছু পণ্যের তালিকা, যা আপনাকে পুরু এক জোড়া ঠোঁট দেবে।

তার আগে চলুন আমরা জেনে নিই ‘লিপ প্লাম্পার’ বা ঠোঁটের পুরুত্ব বাড়াতে সাহায্যকারী উপাদানগুলো আসলে কী কী।

লিপ প্লাম্পার

লিপ প্লাম্পার হলো এমন উপাদান যা ঠোঁটে রক্তের সঞ্চালন বাড়ায়। ফলে ঠোঁটের পেশির ব্যায়াম হয় এবং পেশিগুলো সুগঠিত হয়। কোলাজেন ও হায়ুলুনোরিক সমৃদ্ধ উপাদানগুলো মূলত এক্ষেত্রে সহায়ক হিসাবে কাজ করে।

১. টু ফেইসড লিপ ইনজেকশন

অন্যান্য ব্র্যান্ডের চেয়ে যেকোনো কসমেটিক্স সামগ্রীতে ‘টু ফেইসড’ এর নাম সবার উপরে থাকে। লিপ প্লাম্পারের ক্ষেত্রেও এটি নিজ অবস্থান ধরে রেখেছে। তিন বা চার কোট লিপ ইনজেকশন ঠোঁটে বুলিয়ে পেয়ে যান কাঙ্ক্ষিত পুরু ঠোঁট ও ‘পাউট’। এটি বেশ দীর্ঘস্থায়ী।

সুবিধা

  • এটি লিপগ্লসের মতো বলে ব্যবহারে সুবিধাজনক।
  • ঠোঁটে পুরুত্ব দেবার পাশাপাশি একটি চকচকে প্রলেপ সৃষ্টি করে।
  • দীর্ঘস্থায়ী
  • ভেগান বান্ধব (প্রাণীজ তেল বা আমিষ মুক্ত)
টু ফেইসড লিপ ইনজেকশন; Source: TooFaced

অসুবিধা

  • ঠোঁটের জ্বলুনি বেশি হয়। লিপ প্লাম্প বা ঠোঁট ফুলিয়ে তোলার কারণে ঠোঁটের আশেপাশে লাল হয়ে যায় এবং এটি কিছুদিন স্থায়ী।

রেটিং : ৯/১০

২. স্ম্যাশবক্স ও-প্লাম্প ইন্টুইটিভ লিপ প্লাম্পার

স্ম্যাশবক্স ও-প্লাম্প লিপ প্লাম্পারটি নিজস্ব স্বকীয়তায় জনপ্রিয় এবং সুন্দর মোড়কে পাওয়া যায়।

সুবিধা

  • নিজস্ব আলাদা ফর্মুলায় তৈরি
  • কাঙ্ক্ষিত পুরুত্ব দান
  • চকচকে ও মসৃণ প্রলেপ
  • ঠোঁটে আর্দ্রতা দান
স্ম্যাশবক্স ও-প্লাম্প ইন্টুইটিভ লিপ প্লাম্পার; Source: Duty free City

অসুবিধা

  • স্বল্পস্থায়ী

রেটিং : ৯/১০

৩. নিক্স-প্লাম্প ইট আপ প্লাম্পার

লিপ প্লাম্পারের দামের দিক থেকে সবচেয়ে সাশ্রয়ী হিসাবে ধরে নেয়া হয় এই প্লাম্পারটিকে। আপনার পকেট ফুটো না করেই আপনাকে একটি ভালো ব্র্যান্ডের লিপ প্লাম্পার বাছাইয়ে সহায়তা করতে নিক্স প্লাম্পার প্রতিজ্ঞাবদ্ধ।

সুবিধা

  • থ্রি-ডি প্রতিফলনসহ পুরু ঠোঁট দান
  • শেডের ভিন্নতা
  • বাজেট বান্ধব
নিক্স-প্লাম্প ইট আপ প্লাম্পার; Source: DancingWithDragQueens

অসুবিধা

  • একটি কোটিঙে কাঙ্ক্ষিত লুক পাওয়া যায় না। কয়েক পরত করে লাগাতে হয়।

রেটিং : ৯/১০

৪. স্কাইন আইসল্যান্ড প্লাম্পিং লিপ জেল

আপনি যদি জেনে থাকেন যে, জেল মাস্ক শুধুমাত্র চোখ কিংবা মুখের জন্যই পাওয়া যায় তাহলে আপনার ধারণাকে ভুল প্রমাণ করতে এই পণ্যই যথেষ্ট। এটি শুধু লিপ প্লাম্পই করে না বরং ঠোঁটের আর্দ্রতা বজায় রাখার পাশাপাশি এটি ঠোঁটের স্বাভাবিক রং ধরে রাখতে সহায়তা করে।

সুবিধা

  • দ্রুত কার্যকরী
  • জ্বলুনিমুক্ত
  • চটচটে ভাব মুক্ত
স্কাইন আইসল্যান্ড প্লাম্পিং লিপ জেল; Source: Amazon

অসুবিধা

  • পুরুত্ব খুব সামান্য
  • স্বল্পস্থায়ী

রেটিং : ৯/১০

৫. ল্যান্সার স্কিন কেয়ার ভলিউম ইনহ্যান্সিং লিপ সেরাম

যারা খুব দ্রুতই ফলাফল দেখতে চান, তারা হয়তো এটি ব্যবহার করার পর একটু হতাশই হবেন। তবে এটি ধীরে ধীরে খুব ভালো কাজ করতে শুরু করে এবং এটিকে রীতিমত ‘রত্ন’ তকমা দেয়া হয়েছে। এটি গ্লসি ও ঠোঁটে একটি চকচকে ভাব দেয়।

ল্যান্সার স্কিন কেয়ার ভলিউম ইনহ্যান্সিং লিপ সেরাম; Source: Space NK

সুবিধা

  • এটিতে অ্যান্টি-এজিং ফর্মুলা রয়েছে, যা ঠোঁটের আশেপাশে চামড়া কুঁচকে যাওয়া বা বলিরেখা পড়ে যাওয়া রোধ করে।

অসুবিধা

  • দীর্ঘদিন ব্যবহারে ফল পাওয়া যায়।

রেটিং : ৯/১০

৬. দেবোরা মিলানো ভলিউম এন্ড কালার লিপ প্লাম্পার

যদি আপনি ঠোঁটের প্রসাধনীর জগতে নবাগতা হয়ে থাকেন এবং খুব বেশি খরচ করার ঝুঁকিও নিতে না চান তাহলে এই লিপ প্লাম্পারটি আপনার জন্য।

সুবিধা

  • চোখে পড়ার মতো পরিবর্তন
  • চকচকে প্রলেপ
  • দীর্ঘস্থায়ী
  • আঠালো ভাব মুক্ত ও গ্লসি

অসুবিধা

  • তেমন কোনো উল্লেখযোগ্য শেড নেই

রেটিং : ৮.৫/১০

৭. গ্ল্যামগ্লো প্ল্যামার‍্যাগাস গ্লস লিপ ট্রিটমেন্ট

মিন্ট ফ্লেভারে এবং সুন্দর মোড়কে নজর কাড়ার মতো একটি পণ্য বলা চলে। এটির অ্যাপ্লিকেটরও সাধারণ লিপ গ্লসের মতো না হয়ে একটু ভিন্নরকমের হয়ে থাকে।

সুবিধা

  • মিন্টের ফ্লেভার ঠাণ্ডা অনুভূতি দেয়
  • এক সপ্তাহেই চোখে পড়ার মতো পরিবর্তন দেখা যায়
গ্ল্যামগ্লো প্ল্যামার‍্যাগাস গ্লস লিপ ট্রিটমেন্ট; Source: Style with Glamour

অসুবিধা

  • সংবেদনশীল ত্বকের জন্য জ্বলুনির মাত্রা বেশি হতে পারে।
  • ভালোভাবে লাগানো না হলে ঠোঁটের উপরে দলা পাকিয়ে যায়।

রেটিং : ৮/১০

৮. ডুওপ লিপ ভেনম

সর্বাধিক জনপ্রিয়তার তালিকা নিজের নাম টিকিয়ে রেখেছে এই লিপ প্লাম্পারটি। লিপ প্লাম্পারের কথা বলতে গেলে ডুওপ লিপ ভেনমকে বলা যায় পথপ্রদর্শক। দারচিনির ফ্লেভারে দারচিনি ও আদার মতো গুণসম্পন্ন উপাদানে ভরপুর এই লিপ প্লাম্পার ঠোঁটে রক্তের সঞ্চালন দ্রুত বৃদ্ধি করে।

সুবিধা

  • প্রাকৃতিক উপাদানে তৈরি
  • পাতলা প্রলেপেই কার্যকরী
ডুওপ লিপ ভেনম; Source: Look Fantastic

অসুবিধা

  • এটি যে পাত্রে সংরক্ষিত হয় তাতে লিপ প্লাম্পার শেষ অবধি ব্যবহার করা যায় না। ফলে সম্পূর্ণ পয়সা-উসুল বলা যায় না। পাত্র কেটে অবশিষ্ট অংশ বের করতে হতে পারে।

রেটিং : ৮/১০

বাড়তি চমক

ক্যান্ডিলিপস

লিপ প্লাম্পার গ্লস বা জেলের ভিড়ে এটি একটি যন্ত্র যা ঠোঁটের পুরুত্ব বাড়ায়। এটি ঠোঁটের আকারের চেয়ে একটু ছোটো হয় এবং দুই ঠোঁট একত্রে ঢুকিয়ে বিশেষ ভাবে শ্বাস গ্রহণ ও ত্যাগ করে ঠোঁটের উপর চাপ সৃষ্টি করে ঠোঁটকে পুরু করে তোলে।

ক্যান্ডিলিপস; Source: Blonde Episodes

সুবিধা

  • যেহেতু এটি ঠোঁটে লাগানোর মতো কোনো উপাদান নয় তাই রাসায়নিক ভাবে কোনো ক্ষতি হবার সম্ভাবনা নেই।
  • মাত্র ৫/১০ মিনিটেই ফলাফল পাওয়া যায়।
  • বারবার ব্যবহার করা যায়।
  • ঠোঁটে জ্বলুনি হবার সম্ভাবনা নাই

অসুবিধা

  • মাত্র দুই থেকে তিন ঘণ্টা স্থায়ী হয়।
  • দীর্ঘদিন ব্যবহারে ঠোঁটের চারপাশে দাগ পড়ে যায়।

তাহলে এভাবেই বাজেট বান্ধব এবং ক্ষতিকারক কেমিক্যাল মুক্ত পণ্য ব্যবহারে আপনিও হয়ে উঠুন সুন্দর এবং পুরু এক জোড়া ঠোঁটের অধিকারী। হয়তো কিছুদিন পরে কাইলি বা জোলির মতন আপনিও হয়ে উঠবেন একজন অনন্যার উদাহরণ!

 

Feature Image Source: Harper’s Bazaar

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.